ব্রেকিং:
বিএনপি-জামায়াতের সংঘবদ্ধ চক্র মানুষকে বিভাজন করে: জাহাঙ্গীর কবির ​মুহিবুল্লাহ হত্যা: নিরাপত্তাহীনতায় দিন কাটছে রোহিঙ্গাদের বিএনপি মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে হত্যা করতে চায়: বাহাউদ্দিন নাছিম প্রেমিকা ও তার মা-বাবাকে পেটাল প্রেমিকের পরিবার প্রায় ১১ কোটি ডলারে বিক্রি হল পিকাসোর শিল্পকর্ম ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বিএনপির দুই গ্রুপের সংঘর্ষে ছাত্রদল নেতা আহত ভারতে শনাক্ত হল করোনার আরো একটি ধরন প্রেমিকের জিহ্বা দ্বিখণ্ডিত করে দেওয়া সেই প্রেমিকার জামিন পরীমনির বিরুদ্ধে চার্জশিট গ্রহণ মঙ্গলবার মিসক্যারেজের কারণ ও লক্ষণ টেকনাফ থেকে ২২১ রোহিঙ্গাকে কুতুপালং ক্যাম্পে স্থানান্তর তৃণমূল থেকে ত্যাগীদের নাম কেন্দ্রে পাঠানোর নির্দেশনা সিনহা হত্যা মামলা: ৬ষ্ঠ ধাপের সাক্ষ্যগ্রহণ চলছে অনৈতিক সুবিধা দাবি: দুদকের তদন্ত কর্মকর্তাকে হাইকোর্টে তলব সুস্থ থাকতে সকালে কখন ঘুম থেকে উঠা সঠিক? দমে যাননি দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী নাঈম, দিলেন ভর্তি পরীক্ষা ৬ ছাত্রের চুল কেটে দেওয়া সেই শিক্ষকের জামিন শাহরাস্তিতে স্বামী হত্যা মামলায় স্ত্রীর যাবজ্জীবন চাঁদপুরে ইলিশ রক্ষার ২২দিনে ৩৭৩ অভিযান-মোবাইল কোর্ট সাম্প্রদায়িক হামলার প্রতিবাদে চাঁদপুরে চিকিৎসকদের মানববন্ধন
  • সোমবার   ২৫ অক্টোবর ২০২১ ||

  • কার্তিক ১০ ১৪২৮

  • || ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

অসুস্থ ব্যক্তির পাশে যে দোয়া পড়বেন

নোয়াখালী সমাচার

প্রকাশিত: ৬ অক্টোবর ২০২১  

অসুস্থ ও মৃতব্যক্তির কাছে গেলে তাদের জন্য ভালো দোয়া করা সুন্নাত। এমনই একটি ছোট্ট দোয়া পড়তে বলেছেন তিনি। এতে অসুস্থ ও মৃতব্যক্তির যেমন কল্যাণ হয়; তেমনি যে দোয়া করে তার জন্যও রয়েছে অনেক বেশি উপকারিতা। যা প্রমাণিত হয়েছে উম্মুল মুমিনিন হজরত উম্মে সালামা (রা.) এর জীবনে। 

অসুস্থ ও মৃতব্যক্তির পাশে পড়ার দোয়াটি হচ্ছে-

কেউ অসুস্থ হলে কিংবা মারা গেলে তার পাশে গিয়ে এ ছোট্ট দোয়াটি করার কথা বলেছেন বিশ্বনবী-    

اَللَّهُمَّ اغْفِرلِى وَ لَهُ وَ اَعْقِبْنِىْ مِنْهُ عُقْبَى حَسَنَةً

উচ্চারণ : ‘আল্লাহুম্মাগফির লি ওয়া লাহু; ওয়া আকিবনি মিনহু উকবা হাসানাহ’

অর্থ : ‘হে আল্লাহ! আমাকে ও তাকে (অসুস্থ ও মৃতব্যক্তিকে) ক্ষমা করে দিন! আর আমাকে উত্তম বিকল্প ব্যবস্থা করে দিন।’ (মুসলিম)

হাদিসে ঘোষিত দোয়াটি অসুস্থ, মৃতব্যক্তি ও নিজের জন্য খুবই চমৎকার। বাস্তবেও এ দোয়াটির প্রতিফলন ঘটেছিল উম্মুল মুমিনিন হজরত উম্মু সালামা (রা.) এর জীবনে। তিনি নিজেই হাদিসটি বর্ণনা করেছেন এভাবে-

হজরত উম্মু সালামা রাদিয়াল্লাহু আনহু বর্ণনা করেন, আল্লাহর রাসূল (সা.) বলেছেন, ‘তোমরা অসুস্থ বা মৃতব্যক্তির কাছে গেলে ভালো দোয়া করবে, কারণ তোমরা যা বলো, তোমাদের বলার সঙ্গে ফেরেশতারা ‘আমিন’ (এমনটিই হোক) বলে থাকে।’

হজরত আবু সালামা (রা.)  এর মৃত্যুর পর আমি নবী (সা.) এর কাছে এসে বলি- ‘হে আল্লাহর রাসুল! আবু সালামা মারা গেছে।’ (তখন) নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বললেন, তুমি বল-

اَللَّهُمَّ اغْفِرلِى وَ لَهُ وَ اَعْقِبْنِىْ مِنْهُ عُقْبَى حَسَنَةً

উচ্চারণ : ‘আল্লাহুম্মাগফির লি ওয়া লাহু; ওয়া আকিবনি মিনহু উকবা হাসানাহ’

অর্থ : ‘হে আল্লাহ! আমাকে ও তাকে (অসুস্থ ও মৃতব্যক্তিকে) ক্ষমা করে দিন! আর আমাকে উত্তম বিকল্প ব্যবস্থা করে দিন।

আমি এ দোয়া পড়ার প্ররিপ্রেক্ষিতে আল্লাহ তায়ালা আমাকে তার চেয়ে উত্তম বিকল্প দিয়েছেন; আর তিনি হলেন মুহাম্মাদুর রাসূলুল্লাহ  (সা.) ।’ (মুসলিম)

সুতরাং মুমিন মুসলমানের উচিত, কেউ অসুস্থ হলে বা মারা গেলে তার কাছে যাওয়া। তার জন্য দোয়া করা। নিজের জন্য দোয়া করা। হাদিসের উপর আমল করা। কেননা ওই সময়ে দোয়ার সঙ্গে ফেরেশতারা আমিন বলে থাকেন। আর তাতে মহান আল্লাহ বান্দার ওই দোয়া কবুল করে নেন।

আল্লাহ তায়ালা মুসলিম উম্মাহকে অসুস্থ ও মৃতব্যক্তির জন্য কল্যাণের দোয়া করার তাওফিক দান করুন। নিজের জন্য কল্যাণের দোয়া করার তাওফিক দান করুন। আমিন।