ব্রেকিং:
‘স্মার্ট দেশ’ গড়তে নৌকায় ভোট চাইলেন প্রধানমন্ত্রী রাজশাহীবাসীর জন্য প্রধানমন্ত্রীর ‘উপহার’ ২৬ প্রকল্প রাজশাহীতে ১০ হাজার কোটি টাকার প্রকল্প বাস্তবায়ন করেছি আওয়ামী লীগ কখনো পালায় না - রাজশাহীর জনসভায় প্রধানমন্ত্রী রাজশাহী এখন দেশের সবচেয়ে সুন্দর শহর: তথ্যমন্ত্রী বিএনপি আমাদের লাল কার্ড দেখায়, তারা এখন কই: ওবায়দুল কাদের ২৬ উন্নয়ন প্রকল্পের উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী ১৪ বছরে বদলে গেছে রাজশাহী উৎপাদনে ফিরছে ॥ রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র প্রতিদিন গড়ে ৬ কোটি ৩৭ লাখ ডলার রেমিট্যান্স আসছে দেশের শান্তি রক্ষায় নিরলসভাবে কাজ করছে পুলিশ: প্রধানমন্ত্রী দেবীদ্বারে আ’লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি, জানেন না উপজেলা সম্পাদক কুমিল্লায় ৬ মাসের সাজা নিয়ে পলাতক দশ বছর,অবশেষে আটক পূর্ব শাহতলীতে ওয়াজ ও দোয়ার মাহফিল সম্পন্ন চাঁদপুর সদর ও পৌর আওয়ামী লীগের মতবিনিময় চাঁদপুর জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে আলোচনা চাঁদপুরে খেলাফত যুব মজলিশের বিক্ষোভ মিছিল চাঁদপুরে সুবিধাবঞ্চিত শিশু শিক্ষার্থীরা পেল হ্যান্ডওয়াশ টেন্ডারকৃত রাস্তায় কাজ না করিয়ে অন্যস্থানে করায় মানববন্ধন চাঁদপুর ডাকাতিয়া নদীর পাড়ে ব্র্যাক শিক্ষা তরীর উদ্বোধন
  • সোমবার   ৩০ জানুয়ারি ২০২৩ ||

  • মাঘ ১৭ ১৪২৯

  • || ০৭ রজব ১৪৪৪

পথচারীর পকেটে ইয়াবা ‘দেয়া’ এএসআইসহ তিনজনের রিমান্ড

নোয়াখালী সমাচার

প্রকাশিত: ৮ সেপ্টেম্বর ২০২২  

পথচারীর পকেটে মাদক দিয়ে ফাঁসাতে গিয়ে (মাদক মামলায়) গ্রেফতার পল্লবী থানার এএসআই মাহবুবুল আলমসহ তিনজনের দু’দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

বৃহস্পতিবার (৮ সেপ্টেম্বর) ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ শেখ সাদী তাদের জামিন নামঞ্জুর করে দু’দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

রিমান্ডভুক্ত অপর আসামিরা হলেন- মো. রুবেল ও মো. সোহেল রানা।

এর আগে বুধবার সকালে তিন আসামিকে আদালতে হাজির করা হয়। এ সময় মামলার সুষ্ঠু তদন্তের স্বার্থে তাদের বিরুদ্ধে সাত দিনের রিমান্ডের আবেদন করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ক্যান্টনমেন্ট থানার উপ-পরিদর্শক মো. আনোয়ার হোসেন।

অন্যদিকে আসামিপক্ষের আইনজীবী তাদের রিমান্ড বাতিল ও জামিন চেয়ে আবেদন করেন। পরে আদালত জামিন নামঞ্জুর করে তাদের প্রত্যেককে দুই দিনের রিমান্ডের আদেশ দেন।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, আসামি এএসআই মাহবুবুল আলম একজন সোর্সের কাছ থেকে ইয়াবার প্যাকেট নিয়ে পথচারী খলিলুর রহমানের পকেটে ঢুকিয়ে দেন এবং মাদক ব্যবসায়ী বলে উল্লেখ করে তাকে আটক করেন। পরে খলিলুর রহমানের বিরুদ্ধে মাদক আইনে একটি মামলা করে পুলিশ।

কিন্তু পুরো ঘটনা একটি বেসরকারি টেলিভিশনের ক্যামেরায় ধরা পড়ে এবং প্রচারিত হয়।

এরপর এ মামলায় চূড়ান্ত প্রতিবেদন দেয় পুলিশ। একইসঙ্গে এ ঘটনায় পল্লবী থানার উপপরিদর্শক খালিদ হাসান তন্ময় বাদী হয়ে রাজধানীর ক্যান্টনমেন্ট থানায় এএসআই মাহবুবুল আলমসহ তিনজনের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে একটি মামলা দায়ের করেন। পরে বুধবার রাতে তাদের গ্রেফতার করা হয়।