ব্রেকিং:
ডিপ্লোমা কোর্সের মেয়াদ নিয়ে আবারও বিতর্ক উত্তরায় প্রাণহানি: প্রধানমন্ত্রীর শোক নোয়াখালীতে জাতীয় শোক দিবস পালিত গাড়ি চালাচ্ছিলেন বরের বাবা, কারোই ফেরা হলো না বাসায় সরানো হলো গার্ডার, ৫ লাশ উদ্ধার টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা ফেনী নদীতে জেলেদের জালে ধরা ৭ মণ ইলিশ উপকূলীয় ৭ উপজেলার উন্নয়নে মহাপ্রকল্প আগামী বছর থেকে সপ্তাহে ৫ দিন ক্লাস: শিক্ষামন্ত্রী শোক দিবস উপলক্ষে চাঁদপুরে ৫০ হাফেজকে খাবার দিল পুনাক অটোরিকশা-মোটরসাইকেল সংঘর্ষে প্রাণ গেল স্কুলছাত্রের মাছ ধরতে গিয়ে ট্রাক্টরে আটকে গেল কিশোর জমিতে কাজ করতে গিয়ে বজ্রপাতে কৃষকের মৃত্যু রায়পুরে ছাত্রীকে যৌন হয়রানি, জামায়াত নেতা গ্রেফতার নবীনগরে ভাতিজার ঘুষিতে প্রাণ গেল চাচার সুইস ব্যাংকে তারেকের অ্যাকাউন্টে দেড় হাজার কোটি টাকা মাঠে কাজ করার সময় বজ্রপাত, প্রাণ গেল কৃষকের খালেদার কাল্পনিক জন্মদিন উদযাপন নিয়ে দ্বন্দ্বে বিএনপি প্রবাসীর স্ত্রীকে অচেতন করে নগ্ন ভিডিও ধারণ, গ্রেফতার ২ শোক দিবসে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা
  • মঙ্গলবার   ১৬ আগস্ট ২০২২ ||

  • ভাদ্র ২ ১৪২৯

  • || ১৮ মুহররম ১৪৪৪

লক্ষ্মীপুরে জমি নিয়ে বিরোধের জেরে বৃদ্ধকে কুপিয়ে হত্যা

নোয়াখালী সমাচার

প্রকাশিত: ৪ আগস্ট ২০২২  

লক্ষ্মীপুরে জমি নিয়ে বিরোধের জেরে মো. হোসেন আহমেদ (৫৫) নামের এক বৃদ্ধকে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও চারজন।

বৃহস্পতিবার (৪ আগস্ট) দুপুরে সদর উপজেলার দিঘলী ইউনিয়নের উত্তর রমাপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

এদিকে এ ঘটনায় তিনজনকে আটক করা হয়েছে। আটকরা হলেন- জাহানারা বেগম, আব্দুর রহিম ও মেহেদি হাসান বাবুল।

নিহত হোসেন উত্তর রমাপুর গ্রামের মৃত আলী আহমেদের ছেলে। আহতরা হলেন- আমির হোসেন (৫০), তার ছেলে আকরাম হোসেন (১৯), নাজমুল ইসলাম (১৫), মনির আহমেদের ছেলে কামরুল হোসেন (২৩)।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, উত্তর রমাপুর গ্রামের আব্দুস সাত্তার মাস্টারের পরিবারের সঙ্গে ইউনুস মাস্টারের জমি সংক্রান্ত বিরোধ রয়েছে। সকালে ইউনুসের ছেলে সাইফুর রহমান দুলাল, সাইদুর রহমান মিলন ও লিটন ভাড়াটে লোকজন নিয়ে বিরোধীয় জমিতে ঘর নির্মাণ করতে যান। এতে বাধা দিলে তারা সাত্তারের মেয়ে জামাই হোসেন আহমেদসহ আহতদের ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করে। স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে আনার পথে হোসেন আহমেদ মারা যান। আহত আমির, আকরাম, নাজমুল ও কামরুলকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। তাদের অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

এদিকে ঘটনার পর থেকেই হামলাকারীরা পলাতক। এ জন্য কারো বক্তব্য নেওয়া যায়নি।

সদর হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক শামিম মোহাম্মদ আফজাল বলেন, নিহতের গলায় ধারালো অস্ত্রের আঘাত ছিল। আহতদের হাত-পা, মাথা ও পিঠসহ শরীরের বিভিন্ন অংশে ধারালো অস্ত্রে আঘাত রয়েছে। তাদের এখানে রেখে চিকিৎসা দেওয়া সম্ভব নয়।

লক্ষ্মীপুর শহর পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক (তদন্ত) জহিরুল আলম বলেন, হামলার ঘটনায় একজন মারা গেছেন। আহতদের উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা পাঠানো হয়েছে৷

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) পলাশ কান্তি নাথ বলেন, ঘটনায় জড়িত সন্দেহে তিনজনকে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে। ঘটনাটি গুরুত্ব দিয়ে তদন্ত করা হচ্ছে।