ব্রেকিং:
মা ও শিশু কল্যাণ কেন্দ্র থেকে প্রসূতিকে বের করে দিলেন আয়া,অতঃপর . মাদরাসায় বাংলায় সাইনবোর্ড স্থাপনের নির্দেশ সরকার সবার জন্য নিরাপদ পানি, স্যানিটেশন নিশ্চিত করছে দেশে খাদ্য ঘাটতির সম্ভাবনা নেই: খাদ্যমন্ত্রী নতুন স্ন্যাপড্রাগন আসছে এ সপ্তাহেই ১৮ মাসের কাজ শেষ হয়নি ৬২ মাসেও অ্যান্টিবায়োটিক চেনাতে চিহ্ন ব্যবহারের সিদ্ধান্ত সরকারের ফেসবুক পোস্টে ‘হা হা’ দেওয়ায় ব্যাপক ভাঙচুর, পুলিশ মোতায়েন নন-ব্যাংক আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে শৃঙ্খলার মধ্যে আনতে হবে গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু, গলায় পোড়া দাগ গরু-ছাগলের মাংসে যক্ষ্মার জীবাণু শনাক্ত টানা ২৮ দিন করোনায় মৃত্যুশূন্য দেশ, কমলো শনাক্ত বন্যার্তদের দুঃসময়ে সরকার পাশে রয়েছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী প্রাক্তন স্বামীর হামলায় আহত চিকিৎসক স্ত্রী ডাইনিং বন্ধ, হোটেলে উচ্চমূল্য: বিপাকে কুবি শিক্ষার্থীরা দূষণে বছরে ৯০ লাখ মানুষের প্রাণহানি: গবেষণা ইউক্রেন-রাশিয়া যুদ্ধে ৩৭৫২ বেসামরিক নাগরিকের মৃত্যু ‘শুধু চোর নয়, চোরাই মোবাইল বিক্রেতারাও গ্রেফতার হবে’ কক্সবাজারে অপরিকল্পিত স্থাপনা নির্মাণ নয়: প্রধানমন্ত্রী চরাঞ্চলের জনগণের ক্ষুধা-দারিদ্র্য হ্রাসে প্রকল্প নেয়া হয়েছে
  • বৃহস্পতিবার   ১৯ মে ২০২২ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ৫ ১৪২৯

  • || ১৬ শাওয়াল ১৪৪৩

মসজিদের ৭ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে মামলা

নোয়াখালী সমাচার

প্রকাশিত: ২৮ জানুয়ারি ২০২২  

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় এক যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে মসজিদের অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে মামলা করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২৭ জানুয়ারি) দুপুরে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম আদালতে সদর উপজেলা যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সোহেল রানা মুন্সির বিরুদ্ধে মামলাটি করা হয়।

সদর উপজেলার সাদেকপুর ইউনিয়নের চিলোকূট গ্রামের মুন্সিবাড়ি শাহী জামে মসজিদ কমিটির সাধারণ সম্পাদক মো. ইকবাল বাদী হয়ে মামলাটি করেন।

মামলাটি তদন্ত করে প্রতিবেদন জমা দেওয়ার জন্য ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানা পুলিশকে নির্দেশ দিয়েছেন বিচারক আফরিন আহমেদ হ্যাপী।

আসামি সোহেল রানা মুন্সি সদর উপজেলার সাদেকপুর ইউনিয়নের চিলোকূট গ্রামের বাসিন্দা।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, সদর উপজেলার সাদেকপুর ইউনিয়নের চিলোকূট গ্রামের বাসিন্দা ইসমাইল মুন্সি চিলোকূট মুন্সিবাড়ি শাহী জামে মসজিদ কমিটির কোষাধ্যক্ষ ছিলেন। তার বার্ধক্য ও অসুস্থতাজনিত কারণে ২০১৯ সালের জুন মাসে তার ছেলে যুবলীগ নেতা সোহেল রানা মুন্সিকে কোষাধ্যক্ষের দায়িত্ব দেওয়া হয়। এরপর মসজিদ ফান্ডের ৭ লাখ ৯ হাজার টাকা নিজের কাছে নিয়ে নেন সোহেল।

এজাহারে আরও বলা হয়, মসজিদের পুনর্নির্মাণ কাজ শুরু হলে কমিটির লোকজন সোহেলের কাছে ফান্ডের টাকা চান। তিনি টাকা না দিয়ে টালবাহানা করতে থাকেন। সর্বশেষ মঙ্গলবার (২৫ জানুয়ারি) কমিটির লোকজন টাকা ফেরত দিতে বললে মসজিদের পাওনা অস্বীকার করেন সোহেল। এনিয়ে মসজিদ কমিটির লোকজনের সঙ্গে তার বাগবিতণ্ডা হয়। একপর্যায়ে কমিটির সাধারণ সম্পাদক ইকবালসহ কয়েকজনকে মারধর করেন সোহেল।

মামলার বাদীপক্ষের আইনজীবী গোলাম মহিউদ্দিন স্বপন জানান, বিচারক মামলাটি আমলে নিয়ে সদর মডেল থানা পুলিশকে তদন্ত করে প্রতিবেদন জমা দিতে বলেছেন।