ব্রেকিং:
আন্দোলনকারীরা বক্তব্য দিতে চাইলে আপিল বিভাগ বিবেচনায় নেবেন সচেতনতার অভাবে অনেক মানুষ বিভিন্ন দুরারোগ্য ব্যাধিতে আক্রান্ত জনদুর্ভোগ সৃষ্টি করলে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে : ডিএমপি গমের উৎপাদন বাড়াতে সিমিট ও মেক্সিকোর সহযোগিতা জনদুর্ভোগ সৃষ্টি থেকে বিরত থাকুন : আরাফাত বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে সমাজসেবা অধিদপ্তরের পরিচালকের শ্রদ্ধা মোদির সাথে বিমসটেক পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের সাক্ষাত গাজায় শান্তি রক্ষা করবে আরব যৌথ বাহিনী: বাইডেন কোটা আন্দোলন প্রশ্নে আইনমন্ত্রী কি বললেন? ‘পুলিশের গুলিতে কোনো শিক্ষার্থী মারা যায় নি" ভারত থেকে আমদানি হলো ১১টি বুলেটপ্রুফ সামরিক যান সৌদি আরবে হামলার হুমকি, স্পর্শকাতর স্থানের ভিডিও প্রকাশ পরকীয়া করতে গিয়ে ধরা, সেই স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা বহিষ্কার বাংলাদেশ-চীনের মধ্যে ২১ চুক্তি ও সাত ঘোষণাপত্র সই লক্ষ্মীপুরের কমলনগরে প্রযুক্তি বিষয়ক কুইজ প্রতিযোগিতা ঝিনুকে তৈরি মুক্তার গহনা প্রধানমন্ত্রীর হাতে লক্ষ্মীপুরে হাত-পা বেঁধে প্রবাসীর স্ত্রীকে হত্যার পর ডাকাতি নোয়াখালীতে প্রকৌশলীসহ সেই চার শিক্ষক কারাগারে নোয়াখালীতে পরীক্ষা হলে হট্টগোল-খোশগল্প চট্টগ্রামে এডিসি কামরুল ও তার স্ত্রীর সম্পদ ক্রোকের আদেশ
  • শনিবার ১৩ জুলাই ২০২৪ ||

  • আষাঢ় ২৮ ১৪৩১

  • || ০৫ মুহররম ১৪৪৬

কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে জলাবদ্ধতা

নোয়াখালী সমাচার

প্রকাশিত: ১৯ জুন ২০২৩  

কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে জলবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। জলবদ্ধতার কারণে হাসপাতালে আসা রোগী ও রোগীর স্বজনরা ভোগান্তিতে পরেছে। জলবদ্ধতার নোংরা পানিতে রোগ জীবাণুর সংক্রমন বেড়ে যাওয়ার আশংকা করছেন স্থানীয়রা।

গতকাল রবিবার দুপুর ২টায় হাসপাতাল চত্ত্বরে জলাবদ্ধতার এমন দৃশ্য চোখে পড়ে। হাসপাতালের বহি: বিভাগে চিকিৎসা নিতে আসা রোগী ও রোগীর স্বজনরা কাপড় ভিজিয়ে হাসপাতাল থেকে বের হতে হয়েছে। অনেকে রোগীকে কোলে করে হাসপাতাল থেকে বের করেছে। হাসপাতালের চারপাশে ময়লা আবর্জনার নোংরা পানি থৈথৈ হয়ে আছে।

রোগীর স্বজন রহিমা জানান, আমরা সকালে হাসপাতালে ডাক্তার দেখাতে এসেছি। তখল আকাশ ভাল ছিল। দুপুর বারটার পর বৃষ্টিতে হাসপাতাল এলাকা পানিতে তলিয়ে গিয়েছে । এখন প্রায় ২টার কাছাকাছি। বৃষ্টির কারণে আমরা বের হতে পারিনি। ডাক্তার দেখিয়েছি। কিন্তু পানির কারণে আমাদের কাপড় ভিজে গিয়েছে। ময়লা পানি বাড়ীতে যাওয়ার পর জানিনা কোন সমস্যা হয় কিনা। সমস্যা হলে আবার হাসপাতালে আসতে হবে।

এমন সময় হাসপাতালের আঙ্গিনায় থাকা সিএনজি, অটোরিক্সা, মোটরসাইকেলের  চাকা পানিতে তলিয়ে থাকতে দেখা গিয়েছে।  
নাম প্রকাশ না করার শর্তে হাসপাতালের এক স্টাফ বলেছেন, হাসপাতালের এ সমস্যা দীর্ঘ কয়েক বছরের । একটু বৃষ্টি হলেই পুরো হাসপাতাল এলাকা পানিতে তলিয়ে যায়। হ্সাপাতালের চার পাশ উচু হয়েছে কিন্তু হাসপাতাল এলাকা উচু করা হয়নি। তাই চারপাশের পানি এসে হাসপাতাল এলাকায় জমে থাকে। এছাড়া পানি চলাচলের তেমন ভাল ড্রেন না থাকায় পানি দ্রুত সরতে পারছেনা।


কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ডা. আজিজুর রহমান সিদ্দিকী এ বিষয়ে বলেন,  হাসপাতালের জলবদ্ধতা সমস্যাটি দীর্ঘদিনের। আমি হাসপাতালে এসেছি মাত্র ৩মাস হয়। আজকেই দেখলাম হাসপাতাল চত্ত্বরে পানি। পানি ধীরে ধীরে সরে যাচ্ছে। আগের তুলনায় এখন অনেক কমে গিয়েছে। আমরা গণপূর্ত বিভাগকে বিষয়টি জানিয়েছি। আগামীকাল বিষয়টি নিয়ে বসব। কিভাবে জলাবদ্ধতা সমস্যার সমাধান করা যায় তা আলোচনা করা হবে। আসা করি হাসপাতালের জলাবদ্ধতা সমস্যার একটি সঠিক সমাধান হবে।