ব্রেকিং:
মা ও শিশু কল্যাণ কেন্দ্র থেকে প্রসূতিকে বের করে দিলেন আয়া,অতঃপর . মাদরাসায় বাংলায় সাইনবোর্ড স্থাপনের নির্দেশ সরকার সবার জন্য নিরাপদ পানি, স্যানিটেশন নিশ্চিত করছে দেশে খাদ্য ঘাটতির সম্ভাবনা নেই: খাদ্যমন্ত্রী নতুন স্ন্যাপড্রাগন আসছে এ সপ্তাহেই ১৮ মাসের কাজ শেষ হয়নি ৬২ মাসেও অ্যান্টিবায়োটিক চেনাতে চিহ্ন ব্যবহারের সিদ্ধান্ত সরকারের ফেসবুক পোস্টে ‘হা হা’ দেওয়ায় ব্যাপক ভাঙচুর, পুলিশ মোতায়েন নন-ব্যাংক আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে শৃঙ্খলার মধ্যে আনতে হবে গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু, গলায় পোড়া দাগ গরু-ছাগলের মাংসে যক্ষ্মার জীবাণু শনাক্ত টানা ২৮ দিন করোনায় মৃত্যুশূন্য দেশ, কমলো শনাক্ত বন্যার্তদের দুঃসময়ে সরকার পাশে রয়েছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী প্রাক্তন স্বামীর হামলায় আহত চিকিৎসক স্ত্রী ডাইনিং বন্ধ, হোটেলে উচ্চমূল্য: বিপাকে কুবি শিক্ষার্থীরা দূষণে বছরে ৯০ লাখ মানুষের প্রাণহানি: গবেষণা ইউক্রেন-রাশিয়া যুদ্ধে ৩৭৫২ বেসামরিক নাগরিকের মৃত্যু ‘শুধু চোর নয়, চোরাই মোবাইল বিক্রেতারাও গ্রেফতার হবে’ কক্সবাজারে অপরিকল্পিত স্থাপনা নির্মাণ নয়: প্রধানমন্ত্রী চরাঞ্চলের জনগণের ক্ষুধা-দারিদ্র্য হ্রাসে প্রকল্প নেয়া হয়েছে
  • বৃহস্পতিবার   ১৯ মে ২০২২ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ৫ ১৪২৯

  • || ১৬ শাওয়াল ১৪৪৩

খালেদার সুস্থতা মেনে নিতে পারছেন না তারেক রহমান

নোয়াখালী সমাচার

প্রকাশিত: ২২ জানুয়ারি ২০২২  

শিগগিরই রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতাল থেকে বাসায় ফিরবেন বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়া। কিন্তু খালেদার সুস্থ হয়ে বাসায় ফেরার বিষয়টি কোনো ভাবেই মেনে নিতে পারছেন না তার ছেলে ও দণ্ডপ্রাপ্ত বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান।

দলীয় সংশ্লিষ্ট গোপন সূত্রে জানা গেছে, গত শুক্রবার রাতে দলটির সিনিয়র এক নেতার সঙ্গে এ বিষয়ে মেজাজ হারান তিনি।

সূত্রটি আরো জানায়, খালেদা জিয়ার বাসায় ফেরার বিষয়টি শোনার সঙ্গে সঙ্গে তারেক রহমান স্কাইপিতে ফোন দেন। 

এ সময় তিনি বলেন, তোমাদের কতবার বললাম, কত করে বললাম, যেভাবেই হোক দলীয় নেত্রীকে হাসপাতালে রাখো। সুস্থ হলেও যেন রিলিজ না পান। কিন্তু কে শোনে কার কথা! তোমরা আমার কথা শুনলা না। যার ফলে এখন কি হবে বুঝতে পারছো একবার, রাজনীতি করার আর কোনো ইস্যুই থাকবে না। তখন কি করবে, আঙুল চুষবে? 

সূত্রটির তথ্যমতে, মাঠের রাজনীতিতে সম্পূর্ণভাবে ব্যর্থ ও জনসমর্থনহীন দল বিএনপির বর্তমানে কোনো সাংগঠনিক তৎপরতা নেই। যা টুকটাক সভা-সমাবেশ-মানববন্ধন করছে, সেটাও দলীয় চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার অসুস্থতা নিয়ে। কিন্তু সম্প্রতি রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন খালেদা জিয়া সম্পর্কে তার চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, দ্রুতই সুস্থ হয়ে উঠছেন বিএনপি নেত্রী। কয়েকদিনের মধ্যেই নেয়া যাবে বাসায়। আর এ খবর লন্ডনে পৌঁছতেই মাথায় হাত দিয়েছেন তারেক রহমান। 

বলছেন, এতদিনের প্ল্যান-প্রোগ্রামিং সব ধুলোর সঙ্গে মিশে যেতে বসেছে। কারণ, নেত্রী বাসায় গেলেই রাজনীতি করার ইস্যু শেষ। তাছাড়া দলের সাংগঠনিক অবস্থাও খুব একটা ভালো নয়। তাই সামনে যে কি নিয়ে রাজনীতি করবো, সেটাই এখন ভাবছি।

লন্ডনের কিংস্টনভিত্তিক একটি সূত্র বলছে, ম্যাডামের (খালেদা জিয়ার) বাসায় ফেরার খবর পাওয়ার পর থেকেই নেতাকর্মীদের সঙ্গে এক প্রকার যোগাযোগ করা ছেড়ে দিয়েছেন তারেক রহমান।

বিষয়টি নিয়ে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বিএনপির স্থায়ী কমিটির এক সদস্য বলেন, সন্তান হিসেবে মায়ের হাসপাতাল থেকে বাসায় ফেরা নিয়ে খুশি হওয়ার কথা তারেক রহমানের। কিন্তু তেমনটা হয়নি। তার প্রচণ্ড মন খারাপ। কারণ, স্বার্থে টান পড়েছে। এখন আর তার চিকিৎসা কিংবা মুক্তির কথা বলে তিনি নিজের পকেট ভারি করতে পারবেন না। পারবেন না রাজনীতি করতেও।

রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা বলছেন, মহানুভবতা দেখিয়ে শুধু কারামুক্তিই নয়, নিজের পছন্দমত হাসপাতালে বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়াকে চিকিৎসারও সুযোগ দিয়েছে সরকার। বর্তমানে ধীরে ধীরে সুস্থ হয়ে ওঠছেন তিনি। শিগগিরই ফিরবেন বাসায়। কিন্তু দলীয় চেয়ারপার্সন ভালো হয়ে যাওয়ায় তারেক রহমানের মুখে হাসির পরিবর্তে বরং তার মাথায় উঠেছে হাত। কারণ, তার রাজনীতি করার ইস্যু শেষ হয়ে যাচ্ছে। এখন প্রশ্ন হচ্ছে, যে ছেলে নিজের মাকে নিয়েও রাজনীতি করতে পিছপা হয় না, সে আর যাই হোক প্রকৃত মানুষ হতে পারে না।