ব্রেকিং:
দেশে ২৪ ঘণ্টায় শনাক্ত ২৬৯৫, মৃত্যু ৩৭ হাতিয়ায় নদীর পাড়ে মিললো লাশ মৃত ব্যক্তির লাশ রেখে পালালো স্বজনরা, দাফন করলেন ইউপি চেয়ারম্যান পরশুরামের আরও এক পুলিশ সদস্যের মৃত্যু জমির বিরোধ নিয়ে যুবককে কুপিয়ে আহত কাউন্সিলর ও আওয়ামী লীগ নেতাসহ আরও ১৬ জনের করোনা প্রধানমন্ত্রীর অনুদানে পৌনে ৪১ লক্ষ টাকা পাচ্ছে ফেনীর ৫ পৌরসভা দেশে ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্তের নতুন রেকর্ড, মৃত্যু ৩৭ নিজেরা আক্রান্ত হয়েও সেবায় পিছিয়ে নেই চিকিৎসাকর্মীরা করোনা সঙ্কটেও মে মাসে দেড় বিলিয়ন ডলার রেমিট্যান্স স্বাস্থ্যবিধি লঙ্ঘনে আরও কঠোর হবে সরকার সংক্রমণ বিবেচনায় তিনটি জোনে ভাগ হবে দেশের বিভিন্ন এলাকা বাংলাদেশী হত্যাকাণ্ডে জড়িতদের বিচারের প্রতিশ্রুতি লিবিয়ার চলমান ক্ষুদ্র ও বৃহৎ উন্নয়ন প্রকল্পের মেয়াদ বাড়ছে ১০ হাজার কোটি টাকার জরুরী তহবিল এটিএম বুথ এখন গ্রামেও করোনা-উত্তর অর্থনীতি পুনরুদ্ধার মূল লক্ষ্য গণপরিবহনে উঠার সময় এখন যেসব বিষয় না মানলেই বিপদ! রামগঞ্জে শিশু সন্তান নিয়ে প্রবাসীর স্ত্রী উধাও ফেনীতে কাউন্সিলরসহ আক্রান্ত আরো ১৬
  • বুধবার   ০৩ জুন ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ২০ ১৪২৭

  • || ১০ শাওয়াল ১৪৪১

৬৮২

হাতিয়ায় ৪টি আধুনিক ঘুর্নিঝড় আশ্রয় কেন্দ্র উদ্বোধন

নোয়াখালী সমাচার

প্রকাশিত: ১৫ অক্টোবর ২০১৯  

ভবনের ছাদে হেলিপেড, বজ্রপাত নিরোধক ব্যবস্থা, ২৪ ঘন্টা বিদ্যুৎ সরবরাহ, পানি শোধনাগার, জরুরী মেডিকেল রুম, গবাদি পশু ও প্রতিবন্ধীদের ভিন্ন ভিন্ন থাকার জায়গা সহ আধুনিক সকল সুবিধা দিয়ে তৈরি করা হয়েছে হাতিয়ায় ৬টি আশ্রয় কেন্দ্র। প্রয়োজনের তুলনায় অপ্রতুল হলেও এসব আশ্রয় কেন্দ্রেকে কেন্দ্র করে দ্বীপের মানুষের উচ্ছ্বাস অনেক বেড়ে গেছে।

জানাযায়, ইসলামী উন্নয়ন ব্যাংকের অর্থায়নে, পায়েল খায়ের গ্রুপের তত্ত্বাবধানে হাতিয়া দ্বীপে বিভিন্ন অঞ্চলে এই ৬টি আশ্রয় কেন্দ্র নির্মাণ করা হয়। স্থানীয় সরকার প্রকৌশল বিভাগ এ কাজের তদারকি করেন। মোজবুত কাঠামো, ভূমিকম্প সহনীয় প্রতিটি আশ্রয় কেন্দ্র তৈরি করতে ব্যয় হয় প্রায় ৬ কোটি টাকা।বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর স্থানীয় সংসদ সদস্য আয়েশা ফেরদাউসের তদবিরে এসব আশ্রয়কেন্দ্র নির্মান করা হয়। সম্প্রতি উপজেলা পরিষদ হলরুমে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্টানের প্রধানের হাতে চাবি তুলে দেওয়ার মাধ্যমে এসব আশ্রয়কেন্দ্র উদ্বোধন করা হয়।

শুধু আধুনিক নয় এসব ভবনে দুর্যোগ মুহুর্তে বিশুদ্ধ পানির জন্য রয়েছে পানি শোধনাগার, মহা বিপদ সংকেত এর সময় ভবনে থাকা সতর্ক সাইরেন এমনিতেই জানান দিবে। এছাড়া প্রতিবন্ধী রুম, মহিলা রুম, পুরুষ রুম ভিন্ন ভিন্ন কাঠামো তৈরি করা হয়েছে। ভবনের ২য় তলায় বিশাল জায়গায় গবাদি পশু আশ্রয় স্থল করা হয়েছে।

রেডক্রস চরঈশ্বর ইউনিট প্রধান আব্দুস সহিদ জানান, স্বাধীনতার পর অনেক আশ্রয় কেন্দ্র তৈরি হলেও দুর্বল অবকাঠামো, পৃথক আবাস রুম না থাকা ও শৌছাগার ভালো না থাকায় মানুষ দুর্যোগ মুহুর্তে আশ্রয় কেন্দ্রে যেতে চায় না। বর্তমানে যে চারটি আধুনিক সুবিধা নিয়ে আশ্রয়কেন্দ্র তৈরি হয়েছে তাতে মানুষ আশ্রয় নিয়ে অনেক আরাম পাবে।

সরজমিনে দেখাযায় হাতিয়ায় তৈরি করা নতুন এসব আশ্রয়কেন্দ্রে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পাঠদান চলছে। সাগরিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো: ইউছুফ জানান, নতুন এসব আশ্রয় কেন্দ্রে মনোরম পরিবেশে পড়ালেখার ভালো পরিবেশ সৃষ্টি হয়েছে । প্রতিটি শ্রেণী কক্ষে বৈদ্যুতিক পাখা,পরিপাটি শ্রেণী কক্ষ ছাত্র/ছাত্রী, শিক্ষক সবার মধ্যে পড়ালেখার প্রতি অনুকূল পরিবেশ সৃষ্টি করেছে।
স্থানীয় সংসদ সদস্য আয়েশা ফেরদাউস জানান, বর্তমান শেখ হাসিনার সরকার উন্নয়নে বিশ্বাসী।

তারই ধারাবাহিকতায় দ্বীপের ৬ লক্ষ মানুষের জান-মালের নিরাপত্তা বিবেচনায় নতুন আরো আশ্রয় কেন্দ্র নির্মাণের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে, যা পর্যায়ক্রমে নির্মাণ করা হবে।এ ব্যপারে হাতিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকত নুর এ আলম জানান নতুন আধুনিক এসব আশ্রয় কেন্দ্রের মাধ্যমে দূর্যোগ মোকাবিলায় আরো একদাপ এগিয়ে গেল হাতিয়াবাসী। স্ব-স্ব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রধানকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে এগুলো সঠিক রক্ষনাবেক্ষনের। আমি যতটুকু জানি ইতিমধ্যে আরো কিছু নতুন আশ্রয়কেন্দ্র নির্মানের দরপত্র আহবান করা হয়েছে।

নোয়াখালী বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর