ব্রেকিং:
দেশে একদিনে সর্বোচ্চ করোনা রোগী শনাক্ত ও মৃত্যু কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ডে পাসে এগিয়ে ফেনী, জিপিএ-৫ এ কুমিল্লা কুমিল্লা বোর্ডে জিপিএ-৫ প্রাপ্তিতে সেরা পাঁচ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কুমিল্লা বোর্ডে এসএসসিতে পাশের হার ৮৫.২২ ভাগ, বেড়েছে জিপিএ-৫ কুমিল্লা বোর্ডে পাশের হারে ছেলেরা এগিয়ে , জিপিএ ৫-এ মেয়েরা স্বাস্থ্যবিধি মানাতে মাঠে থাকছে ভ্রাম্যমাণ আদালত করোনা রোধে জনপ্রতিনিধিদের আরও যুক্ত করার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর মুজিববর্ষ উপলক্ষে জাতিসংঘের স্মারক ডাকটিকিট অবমুক্ত দোকান খালে হেলে পড়েছে চাটখিলে সৌদি কারাগারে বন্দি শিশুসন্তানসহ নোয়াখালীর মেয়ে জেসমিন কোম্পানীগঞ্জে কলেজ ছাত্রলীগ সভাপতির ওপর হামলা পরকীয়ায় বাধা দেয়ায় শিশু সন্তানসহ গৃহবধূকে হত্যা নোয়াখালীতে একদিনে রেকর্ড আক্রান্ত ফেনীতে বজ্রপাতে যুবকের মৃত্যু বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবাষির্কী উপলক্ষে জাতিসংঘের স্মারক ডাকটিকিট ‘সেনাবাহিনী দোকান ঘর তুলে না দিলে পথে বসতে হতো’ দেশে ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত ১৭৬৪, মৃত্যু ২৮ উন্নয়ন কর্মকাণ্ডে বিপর্যয় ঠেকানোর উদ্যোগ বাজেটে এবারও কালো টাকা সাদা করার সুযোগ মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ খাতে বাংলাদেশকে সহায়তা দিতে আগ্রহী মিশর
  • রোববার   ৩১ মে ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৭ ১৪২৭

  • || ০৭ শাওয়াল ১৪৪১

২৭

শুধু ১৫ মিনিটেই করোনা টেস্ট

নোয়াখালী সমাচার

প্রকাশিত: ২৫ মার্চ ২০২০  

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস শনাক্তকরণের টেস্ট কিটের অভাবে বিশ্বে অনেকেই মারা যাচ্ছেন। এরই মধ্যে আশার বাণী শুনিয়েছেন নেদারল্যান্ডভিত্তিক প্রতিষ্ঠান সেনসিটেস্ট। শুধু ১৫ মিনিটেই কোনো ব্যক্তির করোনায় আক্রান্ত কি না শনাক্তকরণ করা জানা যাবে বলে দাবি করেছে প্রতিষ্ঠানটি। 

ডেইলি মেইল জানায়, সেনসিটেস্ট নামের ওই প্রতিষ্ঠানের গবেষকরা জানিয়েছেন, কারো রক্ত পরীক্ষা করে মাত্র ১৫ মিনিটেই কভিড-১৯ পজিটিভ নাকি নেগেটিভ, জানিয়ে দেয়া যাবে।

এ প্রসঙ্গে ডেইলি মেইলকে সেনসিটেস্টের প্রধান নির্বাহী রবার্ট ডাস বলেন, প্রেগন্যান্সি পরীক্ষার মতোই এটি খুব সহজ ও সাধারণ। এখানে মূলত দেখা হয়, নমুনা রক্তে আইজিজি ও আইজিএমের মতো অ্যান্টিবডির উপস্থিতি আছে কি না, আর তা কতটা?

অ্যান্টিবডি দুটির উপস্থিতি নিশ্চিত হওয়া মানে এই রক্তবাহী কভিড-১৯ এ আক্রান্ত। কারণ এই ভাইরাসটি রক্তে সংক্রমিত হলে আক্রান্তের শরীরে স্বয়ংক্রিয়ভাবেই ভাইরাসপ্রতিরোধী আইজিজি ও আইজিএমের মতো অ্যান্টিবডি তৈরি হয়। 

আর শরীরে যথেষ্ট পরিমাণে অ্যান্টিবডি তৈরি হলে মাত্র ১৫ মিনিটেই টেস্টের ফল পজেটিভ দেখাবে। তবে এই টেস্টের দুটি সীমাবদ্ধতা রয়েছে।

প্রথমত, কেউ আক্রান্ত হওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই টেস্ট করলে ফলাফল নেগেটিভ দেখাবে। কারণ আক্রান্তের শরীরে তখনো ওসব অ্যান্টিবডি তৈরি হওয়ার সময় পায়নি। এজন্য কিছুদিন পরে টেস্ট করাতে হবে।

দ্বিতীয়ত, আক্রান্ত রোগী সুস্থ হয়ে উঠে এই টেস্ট করালে তাকে তখনো করোনা রোগী হিসাবেই দেখাবে এই টেস্ট। টেস্টের ফলাফল পজেটিভ দেখাবে। কারণ তখনো তার শরীর আইজিজি ও আইজিএমের প্রাচুর্যটা রয়েছে। 

রবার্ট ডাস জানান, শুধু নেদারল্যান্ডসের চিকিৎসকদের কাছে চলতি মাসের মাঝামাঝি সময়ে এই টেস্ট কিট উন্মুক্ত করা হয়েছে। এর গ্রহণযোগ্যতা বাড়লে সারাবিশ্বে এই টেস্ট কিট পৌঁছে দেবে সেনসিটেস্ট।

গেল ডিসেম্বরের চীনের উহান থেকে ছড়িয়ে পড়া মহামারি এই ভাইরাসে এখন পর্যন্ত বিশ্বজুড়ে মারা গেছেন ১৮ হাজারের বেশি মানুষ। আর আক্রান্তের সংখ্যা ৪ লাখ ছাড়িয়েছে।

করোনাভাইরাস বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর