ব্রেকিং:
প্রেমিকাকে ধর্ষণ করে অন্যকে ফাঁসাতে গিয়ে ফেঁসে গেল বখাটে লংমার্চে হামলার প্রতিবাদে বিক্ষোভ সভা পা পিছলে পড়ে কিশোরের মৃত্যু ভাতিজিকে ধর্ষনের দায়ে জেঠা গ্রেফতার শেখ রাসেলের খুনিদের ফাঁসি কার্যকরের দাবী শ্রমিকলীগ নেতার কাছে চাঁদা দাবির অভিযোগ সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নের হারে মন্ত্রিসভার সন্তোষ প্রকাশ শেখ হাসিনা ইয়্যুথ ভলান্টিয়ার অ্যাওয়ার্ডের লোগো উন্মোচন মহাকাশে হারিয়ে যাচ্ছে স্টারলিংক স্যাটেলাইট ফুফুর অন্তরঙ্গ মুহূর্ত দেখা ফেলায় লাশ হলো শিশু সাফল্যের পথে বাংলাদেশ, অবাক চোখে তাকিয়ে ভারত দেশে একদিনে শনাক্ত ১৬৩৭, মৃত্যু বেড়েছে মাস্ক ব্যবহার নিশ্চিতে প্রয়োজনে মোবাইল কোর্ট: মন্ত্রিপরিষদ সচিব বেগমগঞ্জে কিশোর গ্যাংয়ের ৭ সদস্য গ্রেফতার একদিনে তিন লাখ ২৪ হাজার শনাক্ত, মৃত্যু ৩৯৬৮ কর্পোরেট ক্রিকেট দিয়েই সাকিবের ফেরার প্রস্তুতি জনগণের ভাষা বুঝে না বলেই বিএনপি ব্যর্থ: কাদের ১৮ বছর ধরে এক হাজার মানুষের সর্বনাশ করে পালিয়ে গেলো স্বামী-স্ত্রী অহংকারের পতন: বাসি ভাত খেয়ে দিন পার করছেন রানু মন্ডল বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তিতে পরীক্ষা হবে তিন ক্যাটাগরিতে
  • মঙ্গলবার   ২০ অক্টোবর ২০২০ ||

  • কার্তিক ৫ ১৪২৭

  • || ০২ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

৮০

ধর্ষণ মামলায় মেডিকেল রিপোর্ট মুখ্য নয়: হাইকোর্ট

নোয়াখালী সমাচার

প্রকাশিত: ১৫ অক্টোবর ২০২০  

ধর্ষণ মামলা প্রমাণে মেডিকেল রিপোর্ট মুখ্য নয়। পারিপার্শিক অবস্থা ও সাক্ষ্য বিবেচনায় নিয়ে দেয়া যাবে সাজা।

বুধবার বিচারপতি রেজাউল হকের নেতৃত্বাধীন হাইকোর্ট বেঞ্চ এ রায় দিয়েছেন। সেইসঙ্গে কোনো ভুক্তভোগী দেরিতে মামলা করলে সেটি মিথ্যা বলা যাবে না।

ধর্ষণের মামলার সংজ্ঞায় বলা আছে, মেডিকেল রিপোর্ট ছাড়া কোনোভাবেই সাজা দেয়া যাবে না আসামিকে। ধর্ষণ মামলা প্রমাণ করতে তাই অন্যতম অস্ত্র মেডিকেল রিপোর্ট। তবে বুধবার আদালত তার রায়ে জানিয়েছেন, শুধুমাত্র মেডিকেল রিপোর্ট না থাকার কারণে ধর্ষণের মামলা অপ্রমাণিত বলে গণ্য হবে না। ভুক্তভোগীর মৌখিক ও পারিপার্শ্বিক সাক্ষ্য দ্বারা আসামির বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ প্রমাণিত হলেও তার ভিত্তিতে আসামিকে সাজা প্রদান করা যেতে পারে। তাই মেডিকেল রিপোর্ট না থাকার কারণে যে আসামি ধর্ষণ করেনি মর্মে খালাস পেয়ে যাবে, এই অজুহাত গ্রহণযোগ্য নয়।

উল্লেখ্য, ধর্ষণের সর্বোচ্চ সাজা মৃত্যুদণ্ডের বিধান করে মঙ্গলবার অধ্যাদেশ জারি হয়। আগের সর্বোচ্চ সাজা থেকে সরে এসে এবার ধর্ষকের সাজা মৃত্যুদণ্ড হয়।

আদালত বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর