ব্রেকিং:
দিনাজপুরে দেশের প্রথম লোহার খনি আবিষ্কার শেখ হাসিনা এখন আওয়ামী লীগের চেয়েও বড় নোয়াখালীতে অস্ত্রসহ শীর্ষ জলদস্যু গ্রেফতার সপ্তাহের ব্যবধানে কমলো স্বর্ণের দাম ইবতেদায়ি শিক্ষকদের জন্য আসছে এমপিওভুক্তির সুখবর সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে সব প্রস্তুতি নিয়েছে ইসি: সচিব সাকিব-মাশরাফীদের প্রধানমন্ত্রীর অভিনন্দন এখন শুধু শচীন-পন্টিং-সাঙ্গাকারাকে টপকানোর অপেক্ষা ১৫ হাজার কোটি টাকার সম্পূরক বাজেট পাস শেষ ধাপে ২০ উপজেলায় ভোট চলছে বাংলাদেশের সর্বকালের সেরা খেলোয়াড় সাকিব আজ বনভোজন দিবস ব্যাংকে টাকা আছে, লুটে খাওয়ার মতো নেই: প্রধানমন্ত্রী বুয়েট ছাত্রদলের ভিপি ছিলেন বালিশ মাসুদুল হেসে খেলে প্রত্যাশিত জয় টাইগারদের নোয়াখালী সদরে ইভিএমের ক্যাম্পেইন-মাইকিং বিশ্বের সবচেয়ে বড় ব্যাট উন্মোচন আজ উইন্ডিজের বিপক্ষে জয় চান মাশরাফী সমালোচনার মধ্যেও ভদ্রতা থাকতে হয়: তথ্যমন্ত্রী যে কৌশলে আটক হলেন ওসি মোয়াজ্জেম

বুধবার   ১৯ জুন ২০১৯   আষাঢ় ৬ ১৪২৬   ১৫ শাওয়াল ১৪৪০

সর্বশেষ:
তিস্তা চুক্তি ও সীমান্তে হত্যা বন্ধে সহযোগিতার আশ্বাস ভারতের অস্বাভাবিক ক্ষমতাসম্পন্ন শিশুর জন্ম দিলেন কোয়েল মল্লিক! সমৃদ্ধির সোপানে বাংলাদেশের উন্নয়নে কি কি থাকছে প্রস্তাবিত বাজেটে কারাবন্দিদের নাস্তায় যুক্ত হলো উন্নতমানের খাবার যোগ্য সেনা কর্মকর্তাদের পদোন্নতি দিন: প্রধানমন্ত্রী
৬৮

দেশের যেসব ব্যাংক বিয়ে করতে টাকা দেয়

প্রকাশিত: ৪ জুন ২০১৯  

বাড়ি তৈরি, গাড়ি ক্রয়, ব্যবসার জন্যসহ বিভিন্ন প্রয়োজনে অনেক ধরণের ঋণ দেয় বাংলাদেশের ব্যাংকগুলো। তবে এসব ছাড়াও এখন বিয়ে করার জন্য ঋণ দিচ্ছে অনেক ব্যাংক।

দেখে নিন বিয়ে করার জন্য ঋণ দিচ্ছে যেসব ব্যাংক- 

আইএফআইসি ব্যাংক: এই ব্যাংকও গ্রাহকভেদে সর্বোচ্চ তিন লাখ টাকা পর্যন্ত ‘বিয়ের ঋণ’ দিয়ে থাকে। এ ঋণের মেয়াদ সর্বনিম্ন এক থেকে সর্বোচ্চ তিন বছর। বার্ষিক সুদের হার সাড়ে ১৬ শতাংশ। এ ক্ষেত্রে যদি কোনো গ্রাহক তিন বছর মেয়াদের জন্য এক লাখ টাকা ঋণ নেন, তাহলে ওই গ্রাহককে প্রতি মাসে ঋণের কিস্তি বাবদ পরিশোধ করতে হবে তিন হাজার ৫৪২ টাকা।

ট্রাস্ট ব্যাংক: ব্যক্তিগত ঋণের আওতায় বিয়েসহ আরো বেশ কিছু প্রয়োজনে ঋণ-সুবিধা দেয় ব্যাংকটি। তবে ‘বিয়ের ঋণ’ নামে সরাসরি কোনো ঋণ পণ্য নেই। গ্রাহকের প্রয়োজনভেদে সর্বনিম্ন ৫০ হাজার থেকে সর্বোচ্চ ১০ লাখ টাকার ঋণ দেয়া হয়। এক থেকে পাঁচ বছর মেয়াদি এ ঋণের দুই ধরনের সুদের হার রয়েছে। চাকরিজীবীদের বেতনের বিপরীতে যে ঋণ-সুবিধা দেয়া হয়, তার বার্ষিক সুদের হার সাড়ে ১৪ শতাংশ। আর ব্যবসায়ীসহ অন্যদের বেলায় এ ধরনের ঋণের বার্ষিক সুদের হার সাড়ে ১৬ শতাংশ।

প্রাইম ব্যাংক: বেসরকারি খাতের প্রাইম ব্যাংক বলছে, সরকারি, আধা সরকারি, স্বায়ত্তশাসিত, ব্যাংক, আর্থিক প্রতিষ্ঠান, বেসরকারি সংস্থা, বিদেশি সংস্থা, ক্ষুদ্র ও মাঝারি প্রতিষ্ঠানের চাকরিজীবী, ব্যবসায়ী, বাড়ির মালিক—সবার জন্য ‘বিয়ের ঋণের’ বন্দোবস্ত রয়েছে। পেশাভেদে ১৫ হাজার থেকে ৩৫ হাজার টাকা মাসিক আয় বা বেতনের যে কেউ এ ঋণ নিতে পারবেন। গ্রাহকভেদে সর্বনিম্ন ৫০ হাজার থেকে তিন লাখ টাকা পর্যন্ত বিয়ের ঋণ দিচ্ছে প্রাইম ব্যাংক। মাসিক কিস্তিতে পরিশোধযোগ্য এ ঋণের মেয়াদ পাঁচ বছর। ঋণের বার্ষিক সুদের হার ১২ থেকে ১৫ শতাংশ।

ব্যাংক এশিয়া: বিয়ের জন্য সরাসরি কোনো ঋণ-সুবিধা না থাকলেও ব্যক্তিগত ঋণের আওতায় ঋণ নিয়ে তা বিয়ের খরচ হিসেবে ব্যবহার করতে পারেন। ব্যাংকটি সর্বনিম্ন ৫০ হাজার থেকে সর্বোচ্চ ১০ লাখ টাকা পর্যন্ত ঋণ দিচ্ছে। ১৫ হাজার টাকা মাসিক আয়ের বিভিন্ন শ্রেণির পেশাজীবীদের এ ঋণ দেয়া হয়। ঋণের বার্ষিক সুদের হার ১২ থেকে ১৫ শতাংশ পর্যন্ত।

নোয়াখালী সমাচার
নোয়াখালী সমাচার
এই বিভাগের আরো খবর