ব্রেকিং:
হাতিয়ার রাজনীতিতে আসছে পালা বদল হাতিয়ায় বিপুল পরিমাণ কারেন্ট জাল উদ্ধার নেহাকে জোর করে চুমু, ভাইরাল সেই ভিডিও ৩০টি দেশে যাচ্ছে লক্ষ্মীপুরের জুতা নোয়াখালীতে বাজেট অলিম্পিয়াড প্রতিযোগিতা-২০১৯ তথ্য প্রযুক্তিতে নারীর অংশগ্রহণ বাড়ছে গৃহবধূকে যৌতুকের জন্য হত্যা মাছ ধোয়ার সহজ পদ্ধতি জানা আছে তো? নিজ বাড়িতে মিলল বৃদ্ধের মরদেহ একা পেয়ে ভাতিজিকে চাচার ধর্ষণ সড়ক দুর্ঘটনায় নোয়াখালী প্রবাসী নিহত ব্লাড ডোনেট ক্লাব এর বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠান ২৪ অক্টোবর আমেরিকা প্রবাসীর রহস্যজনক মৃত্যু রক রাজার ‘ডায়েরি’ ঘুমন্ত স্বামীর গলায় ছুরি চালালেন স্ত্রী সিরাজুল ইসলাম মেডিকেলের নতুন সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট হাতিয়ায় বহুল প্রতীক্ষিত আওয়ামীলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে নোবিপ্রবিতে খাদ্য দিবস উৎযাপন সেনবাগে ফ্রী ব্লাড গ্রুপ নির্ণয় ক্যাম্পিং জেঠার লালসার শিকার ভাতিজী!

শনিবার   ১৯ অক্টোবর ২০১৯   কার্তিক ৩ ১৪২৬   ১৯ সফর ১৪৪১

সর্বশেষ:
একবছরে পাঁচগুণ মুনাফা বেড়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের আমাজন বাঁচাতে লিওনার্দোর ৫০ মিলিয়ন ডলারের অনুদান রাজধানীতে চার জঙ্গি আটক ১৬২৬৩ ডায়াল করলেই মেসেজে প্রেসক্রিপশন পাঠাচ্ছেন ডাক্তার জোরশোরে চলছে রূপপুর পারমাণবিক প্রকল্পের কাজ
৬৬৯

দুর্ধর্ষ অভিজানে শ্রমিক লীগ নেতাকে উদ্ধার

প্রকাশিত: ৭ অক্টোবর ২০১৯  

সুধারাম থানার দাদপুর ইউনিয়নের কামাল মেম্বারের মেইল ঘর এলাকায় জহির বাহিনী সালিশ বৈঠকে হামলা চালিয়ে ইউনিয়ন শ্রমিক লীগ সভাপতি সোলেমান মাঝিকে মারধর করেছে। এসময় তাকে দিগম্বর করে ২ লাখ ৩০ হাজার টাকা ছিনিয়ে নেয় কসাই বাহিনী। এ ব্যাপারে সুধারাম মডেল থানায় মামলা হয়েছে। পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, শনিবার সকাল ১০টায় দাদপুর ইউনিয়নের কামাল মেম্বারের মিল এলাকায় স্থানীয় সমস্যা নিয়ে এক সালিস বৈঠক চলছিল। এ সময় হঠাৎ করে এলাকার সন্ত্রাসী জহির মেম্বারের নেতৃত্বে এলাকার কিশোর গ্যাং এর ২০/২২ জন সন্ত্রাসী বৈঠকে হামলা চালিয়ে লোকজনদের এলোপাতাড়ি মারধর করে তাড়িয়ে দিয়ে ইউনিয়ন শ্রমিক লীগ সভাপতি সোলেমান মাঝিকে অপহরণ করে নিয়ে যায়। এরপর তাহে জহির মেম্বারের টর্চার সেলে নিয়ে গিয়ে দিগম্বর করে পিটিয়ে আহত করে। তার সাথে থাকা ২ লাখ ৩০ হাজার টাকা ছিনিয়ে নিয়ে তাকে আটক করে রাখে। খবর পেয়ে রাত ৯টায় সুধারাম থানা পুলিশ আহত অবস্থায় সোলেমান মাঝিকে উদ্ধার করে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে।

এ ব্যাপারে শ্রমিক লীগ সভাপতি সোলেমান মাঝি বাদী হয়ে জহির মেম্বারকে প্রধান আসামি করে তার কিশোর গ্যাং ও কসাই বাহিনীর ফারুখ (২৪), রায়হান (২৫), রাসেল (২২), আকবর কসাই (২২) সহ ১২ জনের নাম দিয়ে আরো অজ্ঞাতনামা ৮/১০ জনকে আসামি করে সুধারাম মডেল থানায় মামলা দায়ের করে। গতকাল এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত কোন আসামি গ্রেপ্তার হয়নি। সুধারাম মডেল থানার ওসি (তদন্ত) আবদুল বাতেন মৃধা জানান, সন্ত্রাসীদের গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

নোয়াখালী সমাচার
নোয়াখালী সমাচার
এই বিভাগের আরো খবর