ব্রেকিং:
করোনায় সংক্রমিত পৌরসভার পিয়ন ফকির সুবর্ণচরে সরকারি চাল জব্দ, ডিলার পলাতক, ক্রেতার জরিমানা নোয়াখালীতে ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ৩ জনের মৃত্যু নোয়াখালীতে ডোবায় মিলল ব্যবসায়ীর লাশ হাতিয়া উপকূলে নতুন প্রজাতি আবিষ্কার করলেন নোবিপ্রবি শিক্ষক ফেনীতে মিলে আগুন! লক্ষাধিক টাকা ক্ষতি শুধু যোদ্ধাই নয়, হাতে ওদের নতুন পৃথিবীও করোনার নমুনা সংগ্রহে ‘ভিটিএম কিট’ তৈরি হলো দেশে ২৪ ঘণ্টায় নতুন কোনো ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে ভর্তি হয়নি করোনা জয় করলেন ১১১৯ পুলিশ সদস্য দেড় হাজার টন বোরো ধান সংগ্রহ করেছে সরকার করোনা চিকিৎসায় যুক্ত হচ্ছে সরকারি-বেসরকারি সব হাসপাতাল রাষ্ট্রপতির সাথে সচিব, ৩ বাহিনী প্রধান ও আইজিপির সাক্ষাৎ নিলুফার মঞ্জুরের মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক করোনায় আক্রান্ত দম্পতি; মারা গেল স্বামী ২ ডজন মামলার আসামি গ্রেফতার ইঞ্জিনে বাচ্চা শালিক, উড়তে শেখা পর্যন্ত অপেক্ষা করবে ট্রেন নেতাকর্মীর মাঝে নতুন নোটে ২৭ লক্ষ টাকা বিতরণ আওয়ামী লীগই জনগণের পাশে থাকে, এটাই আওয়ামী লীগের ঐতিহ্য - ওবায়দুল পাশে উঁচু জায়গা রেখে পরিকল্পিতভাবে পানিতে ঈদের নামাজ
  • বৃহস্পতিবার   ২৮ মে ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৪ ১৪২৭

  • || ০৪ শাওয়াল ১৪৪১

১০৪

ঐতিহাসিক বাবরি মসজিদ মামলার রায় আজ

নোয়াখালী সমাচার

প্রকাশিত: ৯ নভেম্বর ২০১৯  

১৯৯২ সালে ভারতের উগ্রপন্থী হিন্দুদের ভেঙ্গে দেয়া ঐতিহাসিক বাবরি মসজিদ মামলার রায় হতে যাচ্ছে আজ। 

ভারতের সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈ এর নেতৃত্বাধীন পাঁচ বিচারপতির বেঞ্চে শনিবার সকাল সাড়ে ১০টায় (বাংলাদেশ সময় বেলা ১১টা) এ মামলার রায় ঘোষণা করা হবে। এদিকে এ মামলায় রায় ঘোষণাকে কেন্দ্র করে উত্তরপ্রদেশে নেয়া হয়েছে কড়া নিরাপত্তা।

রায় ঘোষণার আগে শুক্রবার সন্ধ্যায় চার বিচারপতির সঙ্গে আলোচনা করেছেন প্রধান বিচারপতি। তার পরই মামলার রায় ঘোষণার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। ভারতে বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে।

আলোচিত এ মামলা রায়কে ঘিরে যাতে কোনো প্রকার অপ্রীতিকর পরিস্থিতির সৃষ্টি না হয়, সে বিষয়ে উত্তরপ্রদেশ প্রশাসনের শীর্ষ কর্মকর্তাদের সঙ্গেও আলোচনা করেছেন প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈ।

এদিকে আগামী ১৭ নভেম্বর দেশের প্রধান বিচারপতির পদ থেকে অবসর নিচ্ছেন রঞ্জন গগৈ। তিনি আগেই জানিয়েছিলেন, অবসর নেয়ার আগে অযোধ্যার বিতর্কিত জমি মামলার রায় দিয়ে যেতে চান তিনি। সেই অনুযায়ী তার নেতৃত্বে পাঁচ বিচারপতির বেঞ্চে শুনানি অনুষ্ঠিত হয় এবং ৪০ দিন শুনানির পর রায় সংরক্ষিত রাখেন।

এছাড়া রায়কে কেন্দ্র করে কোনো রকম অশান্তির পরিবেশ যেন সৃষ্টি না হয় সে বিষয়ে হিন্দু-মুসলিম দু’পক্ষের সবাইকে আহ্বান জানানো হয়েছে। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে সব রাজ্যগুলোকে এ সতর্ক বার্তা দেয়া হয়েছে। প্রয়োজনে জরুরি ভিত্তিতে দুটি হেলিকপ্টার প্রস্তুত রাখার নির্দেশও দেয়া হয়েছে।

ভারতের উত্তরপ্রদেশের অযোধ্যায় ১৯৯২ সালের ৬ ডিসেম্বর উগ্র হিন্দুত্ববাদীরা বাবরি মসজিদ ধূলিসাৎ করে। তাদের দাবি, হিন্দুদের ভগবান রামচন্দ্র’র জন্মস্থানে থাকা মন্দির ভেঙে সেই কাঠামোর ওপর ১৫২৮ সালে মুঘল সম্রাট বাবরের সৈন্যরা বাবরি মসজিদ গড়ে তুলেছিল। তাই সেটি ভেঙে ফেলতে হবে।

আন্তর্জাতিক বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর