ব্রেকিং:
আইপিএল জুয়া ঠেকাতে ক্যাবল নেটওয়ার্ক বন্ধ ঘোষণা ফেনীতে সবজি বাজার সিন্ডিকেটের দখলে রাকিবকে পালিয়ে যেতে সহায়তা করেন এসআই বিকাশ দাগনভূঞা থানা ওসি প্রত্যাহার দেশের উন্নয়নে নারীর ভূমিকা সবচেয়ে বেশী ফেনীতে যুবলীগ সভাপতির উপর হামলার ঘটনায় গ্রেফতার-২ জেলা ছাত্রলীগ সভাপতির মায়ের মৃত্যু হাসপাতালের সেবা প্রত্যাশীকে হয়রানি করলে ছাড় নয় পোশাক শ্রমিককে রাস্তা থেকে তুলে নিয়ে গণধর্ষণ, গ্রেফতার ৩ সিলেটের পুলিশ কমিশনারসহ ১৯ কর্মকর্তাকে বদলি ঢামেক-কে ৫ হাজার বেডে উন্নীত করা হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী মামা-ভাগ্নির অদ্ভুত প্রেম, সেই সম্পর্ক এখন থানায় করোনায় দেশে আরো ২৪ মৃত্যু, আক্রান্ত বেড়েছে নদীবন্দরে হুঁশিয়ারি সংকেত, বৃষ্টি বাড়বে যে কারণে ৬ জনকে সঙ্গে নিয়ে মাকে টুকরো করেছিল ছেলে চালকদের ডোপ টেস্ট করার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর তিন বন্ধুর পাহারায় স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ, চারজনই গ্রেফতার বিশ্বে একদিনে সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত ও মৃত্যু যুক্তরাষ্ট্রে কপিরাইট ইস্যুতে চঞ্চল-শাওনের ‘সর্বত মঙ্গল রাধে’ সরিয়ে নিলো ইউটিউব লঘুচাপটিই হতে পারে ঘূর্ণিঝড়, সতর্ক করলো আবহাওয়া অফিস
  • শুক্রবার   ২৩ অক্টোবর ২০২০ ||

  • কার্তিক ৮ ১৪২৭

  • || ০৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

২৩৩

উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট ও পূজা হবে: ইসি সচিব

নোয়াখালী সমাচার

প্রকাশিত: ১৫ জানুয়ারি ২০২০  

নির্বাচন কমিশনের জ্যেষ্ঠ সচিব মো. আলমগীর বলেছেন, ৩০ জানুয়ারি ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট গ্রহণ ও পূজা হবে। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের যেসব কক্ষে পূজা হবে সেগুলো বাদ দিয়ে অন্য কক্ষগুলোতে নির্বাচনের আয়োজন করা হবে।
মঙ্গলবার বিকেলে রাজধানীর আগারগাঁওয়ে নির্বাচন কমিশন ভবনে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন তিনি। 


 
ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পর থেকে হিন্দু সম্প্রদায় দাবি করে আসছিল-৩০ জানুয়ারি ভোটের দিন পরিবর্তন করার জন্য। বিষয়টি নিয়ে আদালতে রিটও করা হয়। মঙ্গলবার হাইকোর্ট রিট খারিজ করে রায় দিয়েছেন, ৩০ জানুয়ারিই দুই সিটিতে ভোট হবে। 

ইসির জ্যেষ্ঠ সচিব বলেন, এসএসসি পরীক্ষা, পূজসহ নানা দিক হিসাব করেই ৩০ জানুয়ারি ভোটের দিন ঠিক করা হয়েছে। তাছাড়া সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পূজা হয় না। যেসব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে হবে, সেখানে হিন্দু সম্প্রদায়ের মানুষ পূজা করবেন। তাদের জন্য আলাদা জায়গা থাকবে। পূজার জায়গাগুলোকে ছেড়ে দিয়েই বাকি কক্ষগুলোতে ভোট হবে। পূজার জায়গায় পূজা চলবে, নির্বাচনের জায়গায় নির্বাচন চলবে।’

পূজা দেখতে সাধারণ মানুষ যাবেন। এতে কেন্দ্রের পরিবেশ নষ্ট হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে কি না, জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘কেন্দ্রে ভোটাররা অবাধে ভোট দিতে পারবেন। আর পূজা যেখানে হবে সেটা তো আলাদা করাই থাকবে। সেখানে মানুষ যেতে পারবে।’

ইসির সঙ্গে বৈঠক শেষে সোমবার হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদ বলেছে, সিটি নির্বাচনের দিন পরিবর্তন না করার কারণে কোনো অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতির সৃষ্টি হলে তার দায়িত্ব সংখ্যালঘু সম্প্রদায় নেবে না।


 
এ বিষয়ে জানতে চাইলে ইসির এই জ্যেষ্ঠ সচিব বলেন, ‘আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি অবনতি হবে- কেন তারা এ ধরনের কথা বলেছেন, আমাদের তা বোধগম্য হয়নি। অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতির সৃষ্টি হবে না। আদালতের রায় সবাই মাথা পেতে নেবেন বলেই আমরা মনে করি।’

আলমগীর বলেন, ‘আদালত উভয় পক্ষের কথা শুনেছেন। তারাও বিবেচনা করে দেখেছেন, ৩০ জানুয়ারি সর্বোত্তম দিন। এ জন্য তারা মামলাটি খারিজ করে দিয়েছেন। তারা বলেছেন, ৩০ জানুয়ারি নির্বাচন করতে কমিশনের কোনো বাধা নেই। আমরা ৩০ জানুয়ারিকে সামনে রেখেই কাজ করে যাচ্ছি। তারা আপিল করতে চাইলে সেটা করতে পারেন।’