ব্রেকিং:
রোহিঙ্গা গণহত্যা মামলার শুনানি আজ নোয়াখালীর নামকরণের ইতিহাস ফেনী-নোয়াখালী আঞ্চলিক মহাসড়ক চার লেন হচ্ছে নোবিপ্রবিতে শূন্য আসনের ভর্তির সাক্ষাৎকার ১৫ ডিসেম্বর কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তায় শ্রেষ্ঠ নোবিপ্রবির কাওছার বসুরহাট পৌরসভা আওয়ামী লীগের সভাপতির ইন্তেকাল উগান্ডায় ভূমিধসে ১৬ জনের মৃত্যু ২৫৭ টাকা নিয়ে ঢাকায় আসা সেই ছেলেটি আজ শ্রেষ্ঠ অভিনেতা গণপরিবহনে মেয়েদের একা ভ্রমণে পুলিশের পরামর্শ ঢাবি’র ৫২তম সমাবর্তন আজ দুই বছরের জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রদান করলেন প্রধানমন্ত্রী জমকালো আয়োজনে শেষ হলো বিপিএলের উদ্বোধন নোয়াখালী থেকে আনসারুল্লাহর চার জঙ্গি গ্রেফতার সুপারির পাতায় মামুনের সাত পণ্য নোয়াখালীর গর্ব জনপ্রিয় কন্ঠশিল্পী ঐশীর জন্মদিন নোয়াখালী সরকারি মহিলা কলেজের ২ ছাত্রীর যৌনতার ফাঁদ ৪৫ টাকা দরে টিসিবি`র মাধ্যমে পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে নোয়াখালীতে বাড়ি ফেরা হলো না বাবার সোনাইমুড়ীতে জায়গা জমি সংক্রান্ত বিরোধে দুইজনকে কুপিয়ে জখম সেনাবাহিনী প্রধান মিয়ানমার যাচ্ছেন আজ

মঙ্গলবার   ১০ ডিসেম্বর ২০১৯   অগ্রাহায়ণ ২৫ ১৪২৬   ১২ রবিউস সানি ১৪৪১

সর্বশেষ:
একবছরে পাঁচগুণ মুনাফা বেড়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের আমাজন বাঁচাতে লিওনার্দোর ৫০ মিলিয়ন ডলারের অনুদান ১৬২৬৩ ডায়াল করলেই মেসেজে প্রেসক্রিপশন পাঠাচ্ছেন ডাক্তার জোরশোরে চলছে রূপপুর পারমাণবিক প্রকল্পের কাজ
১০

আইসিসির রায় মানতে বাধ্য মিয়ানমার: পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী

প্রকাশিত: ১৯ নভেম্বর ২০১৯  

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম বলেছেন, রোহিঙ্গা ইস্যুতে আন্তর্জাতিক আদালতের রায় সব দেশ মানতে বাধ্য। মিয়ানমার আইসিসি (আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালত) বা আইসিজের (আন্তর্জাতিক বিচার আদালত) সদস্য হোক বা না হোক, অং সান সু চিসহ দেশটির ঊর্ধ্বতন ২০ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে রায় হলে তারা অন্য দেশে গেলেই গ্রেফতার হবেন।
সোমবার রাজধানীতে জাতীয় প্রেসক্লাবে ‘আঞ্চলিক ও বৈশ্বিক পরিস্থিতি বিবেচনায় রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের প্রয়োজনীয়তা’ শীর্ষক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

এসময় শাহরিয়ার আলম বলেন, রোহিঙ্গা ইস্যুতে বিশ্বের অনেক দেশে নিজেদের মধ্যেই দ্বন্দ্ব রয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মানবতাকে বড় করে দেখেছেন, তাই রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়েছেন। রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন হতেই হবে। তবে রাতারাতি এ সংকটের সমাধান হবে না।

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আরো বলেন, আইসিসির নির্দেশ হওয়ার পর মিয়ানমার ছাড়াও অনেক দেশের ওপর চাপ সৃষ্টি হবে রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে। সবচেয়ে বড় কথা হলো ভারতের প্রধানমন্ত্রী ও জাপানের প্রধানমন্ত্রী অং সান সু চিকে বলেছেন, রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন না হলে এ অঞ্চল অস্থিতিশীল হবে।

আলোচনা সভায় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মো. শাহ্ কামাল বলেন, উখিয়া ও টেকনাফে আমাদের নিজস্ব লোক মাত্র সাড়ে ৪ লাখ। আর সেখানে বর্তমানে রোহিঙ্গা আছে ১১ লাখ।

আলোচনা সভায় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, সাবেক নির্বাচন কমিশনার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) এম সাখাওয়াত হোসেন, অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিক, সাবেক পররাষ্ট্র সচিব শমসের মবিন চৌধুরী, মেজর (অব.) এমদাদ, অভিবাসী বিশেষজ্ঞ আসিফ মুনির, সাবেক রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ জমির, দৈনিক ভোরের কাগজের সম্পাদক শ্যামল দত্ত প্রমুখ।

নোয়াখালী সমাচার
নোয়াখালী সমাচার
এই বিভাগের আরো খবর